বর্তমান দিনে প্রচুর ডিম্যান্ড! মাত্র ১৫০০ টাকা ইনভেস্ট করে শুরু করুন এই দুর্দান্ত ব্যবসা, হবেন দারুণ লাভবান

নিজস্ব প্রতিবেদন: ব্যবসা অনেক ধরনের হয়ে থাকে। তবে এমন কিছু ব্যবসা রয়েছে, যেগুলোতে বিনিয়োগের পরিমাণ অনেকটা কম আবার উপার্জন কিন্তু অনেকটাই বেশি। এর আগেও বিভিন্ন প্রতিবেদনের মাধ্যমে আমরা আপনাদের সাথে অনেক বিজনেস আইডিয়া শেয়ার করে নিয়েছি। তবে আজ এমন কিছু ব্যবসার আইডিয়া শেয়ার করব যা মাত্র ১৫০০ টাকা থেকে আপনারা শুরু করতে পারবেন।। চলুন তাহলে সময় নষ্ট না করে আজকের এই প্রতিবেদনটি শুরু করা যাক।

১) ঝুরি ভাজার ব্যবসা:

আজকের এই প্রতিবেদনের শুরুতেই আমরা আপনাদের সাথে ঝুরিভাজার ব্যবসার আইডিয়া শেয়ার করে নেব। বাজারের যে কোন জায়গাতেই কিন্তু মাত্র ১৫০০ টাকা দিয়ে একটা মেশিন কিনে এই ব্যবসাটি আপনারা শুরু করতে পারবেন। মেলাতে অথবা যে কোন উৎসবের দিনে আপনারা খুব সহজেই এই ফুড প্রোডাক্ট এর ব্যবসা শুরু করতে পারেন। উপার্জনের কিন্তু কোন অভাব হবে না।

২) কটন ক্যান্ডির ব্যবসা:

আজকের এই প্রতিবেদনের যে দ্বিতীয় বিজনেস টির আমরা কথা বলব সেটা হল কটন ক্যান্ডি ব্যবসা। এই ব্যবসা আপনারা কিন্তু দুই ধরনের মেশিন কিনে করতে পারবেন। একটা হল গ্যাস মেশিন, এটা সাধারণত সিলিন্ডারের সাহায্যে চালানো হয়ে থাকে। অন্য মেশিনটি হল ইলেকট্রিক কটন ক্যান্ডির মেশিন।

এটি চালানোর জন্য বাড়ির নরমাল ইলেকট্রিসিটি আপনাদের প্রয়োজন হবে। যে গ্যাস মেশিনটি রয়েছে সেটির দাম পড়বে ৩০০০ টাকা। একেবারে স্বল্প পুঁজিতে ব্যবসা শুরু করতে চাইলে আপনারা খুব সহজেই এই কটন ক্যান্ডির ব্যবসা শুরু করতে পারেন। এই ব্যবসা শুরু করলে কিন্তু মাসে প্রায় প্রচুর ইনকাম হবে আপনার। যদি আপনারা ইলেকট্রিক কটন ক্যান্ডির মেশিন কেনেন সে ক্ষেত্রে খরচ একটু বেশি পড়বে।

৩) মসলা তৈরির ব্যবসা:

আপনারা চাইলে খুব সহজেই কিন্তু মসলা গুঁড়া করার ব্যবসা শুরু করতে পারেন। এই ব্যবসা শুরু করা কিন্তু খুবই সোজা। মেশিন কিনে খুব সহজেই গোটা মসলা আপনারা এখানে গুড়ো করে প্যাকেজিং করে তা বাজারে বিক্রি করতে পারেন। যদি মনে হয় যে প্যাকেজিং করতে পারবেন না, সে ক্ষেত্রে খোলা প্যাকেটেও কিন্তু খুব সহজে আপনারা মসলা বিক্রি করতে পারেন। তাতেও কোনো রকমের কোন সমস্যা হবে না। দৈনন্দিন জীবনে যেহেতু বিভিন্ন রান্নার কাজে মসলা ব্যবহার করা হয়ে থাকে তাই এই ব্যবসাতে কখনোই বাজার চাহিদার অভাব আপনারা বোধ করবেন না।

৪) পেপার প্লেট তৈরির ব্যবসা:

বর্তমান সময়ে পেপার প্লেট তৈরি করা হচ্ছে মানুষের একটি প্রধান চাহিদার মধ্যে রয়েছে। বিভিন্ন উৎসব অনুষ্ঠান থেকে শুরু করে বিয়ে বাড়ি সব জায়গাতেই খাবার পরিবেশন এর কাজে কিন্তু এই পেপার প্লেট ব্যবহার করা হয়। দেশের প্রত্যেক জায়গাতেই এই পণ্যটির চাহিদা রয়েছে সুতরাং আপনি যদি একটা মেশিন কিনে এটা নিয়ে ব্যবসা শুরু করেন তাহলে কখনোই সমস্যার মধ্যে পড়তে হবে না। প্রাথমিকভাবে পেপার প্লেট মেকিং মেশিনের দাম পড়বে ১৭,৫০০ টাকা। এগুলো খুব সহজেই বাজারের বিভিন্ন দোকানে আপনারা বিক্রি করে নিতে পারবেন।

৫) মুরগির ব্যবসা বা ফার্মের ব্যবসা:
খাদ্যদ্রব্য হিসেবে মুরগির মাংসের ভূমিকা কতটা রয়েছে তা আপনারা সকলেই জানেন। আপনারা যদি মুরগির মাংস বা ফার্মের ব্যবসা শুরু করতে চান সেক্ষেত্রে অবশ্যই কিন্তু অত্যন্ত বেশি পরিমাণে লাভবান হবেন তাতে কোন সন্দেহ নেই।। এই ব্যবসা শুরু করার জন্য আপনাদের শুধুমাত্র একটা মেশিন প্রয়োজন হবে। মুরগি কাটার পর পালক ছাড়াতে গিয়ে অনেকেই সমস্যায় পড়ে থাকেন। আপনারা চাইলে কিন্তু একটা পালক ছড়ানোর মেশিন কিনে খুব সহজেই ফার্মের কাজ শুরু করে ফেলতে পারেন।

৬) পপকর্নের ব্যবসা:
আপনারা চাইলে সহজেই কিন্তু পপকর্নের ব্যবসাও শুরু করতে পারেন। মেলা থেকে শুরু করে যে কোন জায়গাতেই এই ব্যবসা কিন্তু দারুণ জমজমাট ভাবে চলবে। সুতরাং এই ব্যবসা শুরু করতে আগ্রহী থাকলে আর একেবারেই দেরি করবেন না। খুব সামান্য টাকার মধ্যেই ব্যবসার কাজ আপনারা শুরু করে ফেলতে পারবেন।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য যদি আপনারা উপরিউক্ত ব্যবসাগুলো শুরু করতে চান সেক্ষেত্রে খুব সহজেই কিন্তু নিচের দেওয়া ঠিকানায় যোগাযোগ করে মেশিন কেনার বন্দোবস্ত করতে পারেন।
Saha enterprise
Address : Uluberia branch,
Kathila,banitala, howrah- 711316
Others branch :
Kaliganj daspara,POO kaliganj, Dist-Nadia.
Contact : 9073599496.

Back to top button