যেমন টেস্টি তেমনই হেলদি! এই সহজ ঘরোয়া পদ্ধতিতে ঝটপট বানিয়ে দেখুন পালং পনীর পরোটা

নিজস্ব প্রতিবেদন: বাঙালি বরাবর থেকেই ভোজন রসিক জাতি। তাই মাঝেসাঝেই একটু নিত্যনতুন খাবার ট্রাই না করলে কিন্তু আমাদের একেবারেই চলে না। আজকের এই বিশেষ প্রতিবেদনে আমরা তাই আপনাদের সাথে শেয়ার করে নিতে চলেছি পালং পনির পরোটার রেসিপি। চলুন তাহলে আর সময় নষ্ট না করে আজকের এই বিশেষ প্রতিবেদনটি শুরু করা যাক।

এই রেসিপিটি তৈরি করার জন্য আপনাদের প্রথমেই কিছুটা পরিমাণ পালং শাক নিয়ে নিতে হবে। পালং শাক কিন্তু আপনারা ভালোভাবে দুই থেকে তিনবার ধুয়ে নেবেন। মিনিট দুয়েক সময় পর্যন্ত আপনাদের পালং শাক সেদ্ধ করে নিতে হবে যাতে এগুলো সফট হয়ে যায়। সেদ্ধ করা হয়ে গেলে পালং শাকগুলোকে তুলে জল ঝরিয়ে ঠান্ডা করে নেবেন।।

এবার একটা মিক্সার গ্রাইন্ডার এর সাহায্যে পালং শাকগুলোকে ভালোভাবে গ্রাইন্ড করে নিন। শাকের মধ্যেই যেহেতু অনেকটা জল থাকে তাই আলাদা করে জল ব্যবহার করার একেবারেই প্রয়োজন নেই। এবার অন্য একটা পাত্রের মধ্যে আপনাদের নিয়ে নিতে হবে তিন কাপ পরিমাণে আটা।

এই আটার মধ্যে কিছুটা পরিমাণ বেসন, সামান্য পরিমাণ লবণ আর পালং শাকের যে পেস্ট তৈরি করে রেখেছিলেন সেটাকে মিশিয়ে নিন। খুব সামান্য জল ছড়িয়ে আপনাদের আটা আর পালং শাকের পেস্ট ভালো করে মেখে নিতে হবে।। ভালোভাবে ডো তৈরি হয়ে গেলে এর উপরে একটু তেল ছড়িয়ে দিন। কোন একটি ভেজা কাপড় দিয়ে কভার করে পাত্রটি ঢেকে কিছুক্ষণ সময় পর্যন্ত এই মিশ্রণটাকে রেস্টে রাখুন।

পরবর্তী ধাপে আপনাদের নিয়ে নিতে হবে একটা বড় টুকরো পনির যেটাকে গ্রেটারের সাহায্যে গ্রেট করে নেবেন। এবার এতে সামান্য পরিমাণে লবণ আর আনার দানা পাউডার যোগ করুন। এবার একটা ছোট পেঁয়াজ আদা আর কয়েকটি কাঁচা লঙ্কা নিয়ে নিন।পেয়াজ একেবারে কুচি করে কেটে ফেলুন।যতো ভালোভাবে পেঁয়াজ কাটবেন ততটাই কিন্তু ভালো পরোটা তৈরি হবে এটা মাথায় রাখুন।। ঠিক একইভাবে আপনাদের কাঁচালঙ্কা আর আদাও কেটে নিতে হবে।পনিরের মিশ্রণের মধ্যে এই তিনটি উপকরণ মিশিয়ে নিন।

সমস্ত উপকরণ ভালোভাবে মিশিয়ে নিতে থাকুন। ব্যাস এবার ডো টাকে ঢাকনা থেকে খুলে বের করে নিয়ে আসতে হবে। যেরকমভাবে রুটি তৈরি করেন ঠিক তেমনভাবেই ছোট ছোট লেচি কেটে নিন এবং বেলে ফেলুন। পনিরের তৈরি মিশ্রণটাকে এই রুটির মধ্যে দিয়ে দিন এবং ভালোভাবে মুড়ে নিন। শেষে আরো একবার ভালো করে বেলে নিয়ে ভালো করে প্যানে ভেজে নিলেই কিন্তু পালং পরোটা তৈরি হয়ে যাবে।। অসাধারণ স্বাদের এই রেসিপিটি খুব সহজেই কিন্তু আপনারা সকালের জলখাবারে বা বিকেলের নাস্তায় পরিবেশন করতে পারেন।।

Back to top button