মাত্র ২ টাকায় কিনে বিক্রি করুন ৩৬ টাকায়! কলকাতার এখান থেকে জুয়েলারী কিনে শুরু করুন ব্যবসা, হবেন লাভবান

নিজস্ব প্রতিবেদন: কসমেটিক্সের বিভিন্ন ব্যবসা নিয়ে আমরা এর আগেও আপনাদের সাথে আলোচনা করেছি। এই ব্যবসা আছে কতটা লাভজনক আর সুবিধাজনক সেটা নিশ্চয়ই আপনারা এতদিনে বুঝে গিয়েছেন। আসলে বাজার চাহিদার দিক থেকে যেকোনো জায়গাতেই খুব সহজে কসমেটিকসের ব্যবসা দাঁড় করানো যেতে পারে। এজন্য নির্দিষ্ট কোন নিয়মাবলী মানার বা শোনার প্রয়োজন হয় না।

সব থেকে বড় ব্যাপার এটা এমন একটা ব্যবসা যেখানে মূল পণ্যের উপর আপনারা প্রায় ৫০ শতাংশের বেশি লাভ রেখেও কিন্তু বিক্রি করতে পারবেন।। কমবেশি যারা আজকাল নতুন ব্যবসায়ী হিসেবে কাজ শুরু করেছেন অনেকেই কিন্তু কসমেটিকসের ব্যবসা শুরু করেছেন। কারণ এই ব্যবসার ক্ষেত্রে যে লাভ হবে সেটা অন্য কোন ব্যবসার ক্ষেত্রে আপনি পাবেন না।

আজকের এই বিশেষ প্রতিবেদনে তাই আমরা আপনাদের সাথে শেয়ার করে নেব এই ব্যবসা সম্পর্কিত বিশেষ কিছু টিপস যা অনেকটাই সাহায্য করবে।। যারা নতুন ব্যবসা শুরু করতে চান তারা অবশ্যই প্রতিবেদনটি শেষ পর্যন্ত মনোযোগ সহকারে পড়ে নিন। কারণ যে কোন ব্যবসা শুরু করার আগেই সেটি সম্পর্কে প্রয়োজনীয় ধারণা থাকা বিশেষ দরকার।

কসমেটিকসের ব্যবসা শুরু করার জন্য প্রথম ধাপ:

কসমেটিকসের ব্যবসা শুরু করার জন্য আপনাদের প্রথমেই যেটা করতে হবে তা হল ডাইরেক্ট ডিলারের কাছ থেকে কিন্তু জিনিস কিনতে হবে। কারণ আপনি যদি রিটেলার হিসেবে মাল কেনেন সেক্ষেত্রে অনেকটাই বেশি খরচ পড়ে যাবে। সেই খরচের উপর আপনারা কখনোই নিজেদের প্রফিট মারজিন বসিয়ে কিন্তু উপার্জন করতে পারবেন না। সুতরাং আপনারা যদি হোলসেল রেটে জিনিস কিনতে পারেন তাহলে আর কোন সমস্যা হবে না।

কসমেটিকসের জিনিস মোটামুটি কত দাম থেকে আপনারা কিনতে পারবেন?

কসমেটিকসের জিনিস আপনারা মোটামুটি ১ থেকে ২ টাকা দামের মধ্যে বিভিন্ন হোলসেল মার্কেটে পেয়ে যাবেন। রেগুলার ইউজের জন্য বিভিন্ন কানের দুল পেয়ে যাবেন এই দামের মধ্যে। পাশাপাশি ৮ থেকে ১০ টাকার মধ্যে পেয়ে যাবেন বিভিন্ন ডিজাইনের চেন, ২৪ টাকার মধ্যে ছয় মাসের গ্যারান্টি সহকারে চেন পেয়ে যাবেন।

পাশাপাশি ভালো মানের বালা বা বাউটি আপনারা পেয়ে যাবেন ১০ টাকা থেকে। এছাড়াও আপনারা পেয়ে যাবেন বিভিন্ন ক্রিম বা লোশনের অসাধারণ কালেকশন। সিটি গোল্ড বা স্টোনের নেকলেসও কিন্তু আপনারা অত্যন্ত কম দামের মধ্যেই পেয়ে যাবেন। অর্থাৎ পাইকারি রেটে মাল কিনলে একদমই বেশি মূলধন নিয়ে আপনাদের কাজ করার প্রয়োজন পড়বে না।

লাইসেন্স এবং অন্যান্য বিষয়:
এই ব্যবসা শুরু করার জন্য আপনাদের কোন রকমের লাইসেন্সের প্রয়োজন হবে না। নিজেদের স্টল বা দোকান এর মাধ্যমেই আপনারা কাজ শুরু করতে পারবেন। নিজস্ব জায়গা না থাকলে ভাড়াও নিয়ে নিতে পারেন। আবার চাইলে অনলাইনে বিভিন্ন প্লাটফর্মের সাহায্যেও কিন্তু এই জুয়েলারি বা কসমেটিক্স আপনারা বিক্রি করতে পারেন।।

কোথা থেকে পণ্য কিনবেন?

Shop Name – ABN collection
Address – 22, sukeas lane,1st floor, kolkata- 700001
Contact – 7003922179/8013990246.

Back to top button