ধামাকাদার অফার! মাত্র ৪৮ টাকায় পান মিনু শাড়ি, এখান থেকে কিনে শুরু করুন ব্যবসা, হবেন লাভবান

নিজস্ব প্রতিবেদন: বর্তমান সময়ে দেশের বাজারে চাকরির নিয়োগের অবস্থা কোন পর্যায়ে চলে গিয়েছে তা হয়তো আপনাদের কম বেশি সকলেরই জানা। ফলস্বরূপ মানুষ বেঁচে থাকার জন্য বিকল্প পদ্ধতির সন্ধান চালাবেন এটাই স্বাভাবিক। আর এই বিকল্প পদ্ধতি বলতে আমাদের মাথাতে প্রথমেই আসে ব্যবসার কথা। কিভাবে ব্যবসা শুরু করবেন সেই ব্যাপারটা সম্পর্কে একটা স্পষ্ট ধারণা তৈরি করা কিন্তু মধ্যবিত্ত সাধারণ মানুষের পক্ষে সম্ভব নয়।

তাই নতুন ব্যবসায়ীদের জন্য আজকের এই বিশেষ প্রতিবেদনে আমরা নিয়ে চলে এসেছি এমন একটি ব্যবসার আইডিয়া যা অত্যন্ত অল্প সময়ের মধ্যে ৫০০০ টাকা মূলধনে আপনারা শুরু করতে পারবেন। কি অবাক হচ্ছেন তো ৫০০০ টাকায় ব্যবসা? এটাও কি সম্ভব আজকের যুগে? হ্যাঁ অবশ্যই সম্ভব। চলুন ব্যবসা শুরু করার স্টেপ বাই স্টেপ পদ্ধতি প্রতিবেদনের পরবর্তী অংশে জেনে নেওয়া যাক।

স্থানীয় মার্কেট সম্পর্কে ধারণা:

প্রথমেই আপনাদের স্থানীয় মার্কেট সম্পর্কে একটা স্পষ্ট ধারণা তৈরি করে নিতে হবে। এখানে কি ধরনের জিনিসের সবথেকে বেশি চাহিদা রয়েছে এবং যেটা সহজেই আপনারা সাপ্লাই করতে পারবেন সেই দেখে যদি ব্যবসা শুরু করেন তাহলে কিন্তু কখনোই লোকেশন এর মুখোমুখি হবেন না। পাশাপাশি যে ব্যবসা আপনারা শুরু করতে চাইছেন সেই পণ্যটারও বাজার চাহিদা সম্পর্কে আপনাদের ধারণা থাকতে হবে। চেষ্টা করবেন সবসময় একজন মধ্যবিত্ত সাধারণ মানুষ হিসেবে পাইকারি দরের ব্যবসা শুরু করার। কারণ এই ধরনের ব্যবসায়ে কিন্তু কোন রকমের লোকসান হওয়া সম্ভব নয়।

কোন ধরনের ব্যবসা শুরু করবেন?

এর আগে আমরা আপনাদের সাথে বহু ধরনের ব্যবসা শেয়ার করে নিয়েছি। আজ আবারো নিয়ে চলে এসেছি শাড়ির ব্যবসার একটি বিশেষ পরিকল্পনা। মাত্র ৪৮ টাকায় আপনারাই ব্যবসা শুরু করতে পারবেন। আজ আপনাদের সোজাসুজি একটি শাড়ির কারখানার সন্ধান দেব। তবে তার আগে এই ব্যবসার সঠিক কিছু স্টেপ বাই স্টেপ পদ্ধতি জেনে নেওয়া যাক।

প্রথমেই আপনাদের পাইকারি রেটে শাড়ি কিনে নিতে হবে। তারপর লোকাল মার্কেটে প্রফিট মার্জিন রেখে এই শাড়ি বিক্রি করতে হবে। সর্বদা চেষ্টা করবেন হোলসেল রেটে জিনিস নেওয়ার। কারণ এক্ষেত্রে আপনারা একেবারে স্বল্প দামে কিন্তু পণ্য কিনতে পারবেন। এবার আসুন আজকে যে শাড়ির কারখানা সম্পর্কে আপনাদের জানাতে চলেছি সেই ব্যাপারে কিছু জেনে নেওয়া যাক।

মিনু শাড়ির নাম আপনারা নিশ্চয়ই কমবেশি অনেকেই শুনেছেন। এই শাড়ি মাত্র ৪৮ টাকায় অফারে এখানে আপনারা পেয়ে যাবেন। এছাড়াও, ফ্যান্সি শাড়ি আপনারা পেয়ে যাবেন মাত্র ৬৫ টাকায়, প্রিন্টের শাড়ি ও ঠিক একই দামে পাবেন আপনারা। জরির কাজ করা বা তাঁতের শাড়ি আপনারা পেয়ে যাবেন মাত্র ৮৫ টাকার মধ্যে।

এছাড়াও থাকবে অসম্ভব সুন্দর কিছু শাড়ির কালেকশন। রেগুলার ইউজ থেকে শুরু করে উৎসব অনুষ্ঠান সবকিছুর জন্যই কিন্তু আপনারা এই কারখানা থেকে শাড়ি সংগ্রহ করে নিতে পারবেন। অন্ততপক্ষে পাঁচ হাজার টাকা পর্যন্ত জিনিস আপনাদের কিনতে হবে। আর হ্যাঁ যদি আপনারা দূরবর্তী কোন স্থানে বসবাস করে থাকেন সেক্ষেত্রে অনলাইনের মাধ্যমেও কিন্তু জিনিস কিনে নিতে পারেন।। সেই জন্য ভিডিও কলের সুবিধে রয়েছে।

কোথা থেকে পণ্য কিনবেন?

যদি আপনার এই ব্যবসা শুরু করতে চান সেক্ষেত্রে আর সময় নষ্ট না করে নিচের দেওয়া ঠিকানায় যোগাযোগ করে নিতে পারেন। আশা করছি এই প্রতিবেদনটি আপনাদের অনেকটাই সহায়তা করবে নিজেদের লক্ষ্যে এগিয়ে যাওয়ার জন্য।
Shop Name – pai2pai saree textile
Gobindapur, Santipur, Nadia, west bengal.
Contact – 8389890420/8250629501

Back to top button