হুবহু রেস্টুরেন্টের স্টাইলে বাড়িতেই এই সহজ ঘরোয়া পদ্ধতিতে বানান দুর্দান্ত স্বাদের চিকেন বার্গার, ছোটরা করবে দারুণ পছন্দ

নিজস্ব প্রতিবেদন: বার্গার খেতে বাচ্চা থেকে বড় সকলেই কিন্তু কম বেশি অত্যন্ত পছন্দ করে থাকেন। বিভিন্ন হোটেল রেস্টুরেন্টে কিন্তু অত্যন্ত চড়া দামে এই খাবারটা বিক্রি করা হয়ে থাকে। তবে আজকের এই বিশেষ প্রতিবেদনে আমরা বাড়িতে একেবারে সহজ পদ্ধতিতে আপনাদের বার্গার তৈরি করে দেখাবো। একটু চেষ্টা করলেই কিন্তু আপনারা এই বার্গার তৈরি করার কাজটা করে নিতে পারবেন। চলুন তাহলে আর সময় নষ্ট না করে আজকের এই বিশেষ প্রতিবেদনটা শুরু করা যাক।

প্রথমেই আপনাদের বাঁধাকপি কেটে এখান থেকে পাতা আলাদা করে নিতে হবে। তারপর গ্যাসে কড়াই বসিয়ে এর মধ্যে পাতাগুলোকে জল দিয়ে কিছুক্ষণ ভাপিয়ে নিন। যেহেতু চিকেন বার্গার তৈরি করছেন তাই চিকেন কিমা করে কেটে নিতে হবে। খেয়াল রাখবেন মাংসের মধ্যে যেন কোন রকমের হাড় না থাকে। ভালোভাবে চিকেন ধুয়ে নিয়ে এর মধ্যে পেঁয়াজ বাটা, আদা রসুন বাটা, হাফ চামচ জিরা গুঁড়ো, পরিমাণ মতন ধনে গুঁড়ো, লঙ্কার গুঁড়ো, হলুদ গুঁড়ো , গরম মসলার গুঁড়ো এবং লবণ যোগ করে দিন। সমস্ত মসলাগুলোর সাথে আপনাদের চিকেন ভালোভাবে মাখিয়ে নিতে হবে।

এবার আপনাদের মেয়োনিজ তৈরি করে নিতে হবে যার জন্য একটা পাত্রের মধ্যে ডিম ফেটিয়ে নিন। তারপর এর মধ্যে সামান্য পরিমাণে লবণ, এক চামচ চিনি, এক চামচ গোল মরিচ গুঁড়ো এবং সাদা তেল যোগ করে দিন। পাশাপাশি এর মধ্যে ভিনেগার আর লেবুর রস যোগ করে দেবেন। এবার বিটারের সাহায্যে এটাকে ভালো করে ফেটিয়ে নিন। তাহলেই তৈরি হয়ে যাবে মেয়োনিজ।অন্যদিকে গ্যাসে একটা করাই বসিয়ে তাতে কিছুটা পরিমাণ তেল দিয়ে মেখে রাখা চিকেন গুলোকে একটু নাড়াচাড়া করে নিতে হবে।। স্টাফিং তৈরি হয়ে যাবার পর চুলায় একটা তাওয়া বসিয়ে সামান্য তেল দিয়ে দিন।

তেল ব্রাশ করা হয়ে গেলে পরিমাণ মতন বন পাউরুটি নিয়ে একটু ভেজে নিতে হবে। এবার বন পাউরুটি গুলোকে নামিয়ে নিয়ে এর মধ্যে প্রথমেই বাঁধাকপির পাতা দিয়ে দিন। তারপর পাতার উপরে আপনাদের চিকেন স্টাফিং গুলোকে বসিয়ে দিতে হবে। তারপর এর উপরে প্রথমে টমেটো সস, কিছুটা পরিমাণে টমেটোর স্লাইস এবং পেঁয়াজ কুচি, চিজ আর মেয়োনিজ ছড়িয়ে আরো একটা পাউরুটি চাপা দিয়ে দিন। ব্যাস তাহলেই তৈরি হয়ে যাবে সম্পূর্ণ ঘরোয়া পদ্ধতিতে বার্গার। রেসিপিটি খেতে কেমন লাগলো তা অবশ্যই একটা কমেন্ট করে জানাতে ভুলবেন না।

Back to top button