মুলা, ফুলকপির তরকারি রান্না করায় ছেলে উল্টে দিল গরম কড়াই‍, তা দেখে রেগে আগুন মা, ভাইরাল ভিডিও

নিজস্ব প্রতিবেদন: সোশ্যাল মিডিয়া বা নেট মাধ্যম বর্তমানে এমন একটি জায়গা যেখানে নানান ধরনের অদ্ভুতুড়ে জিনিস ভাইরাল হয়ে থাকে। একটা সময়ে এই সোশ্যাল মিডিয়ার ব্যবহার কিন্তু মানুষের মধ্যে সেরকম ভাবে প্রচলিত ছিল না। কিন্তু এখন স্মার্টফোনের সহজলভ্যতা এবং বিভিন্ন টেলিকম কোম্পানিগুলির অসাধারণ অফারের কারণে মানুষের মধ্যে নেট মাধ্যমে ব্যবহার যেন ঝড়ের গতিতে বেড়ে গিয়েছে।

৮ থেকে ৮০ সকলেই এখন এই সোশ্যাল মিডিয়ার বাসিন্দা হয়ে পড়েছেন। বিনোদন থেকে শুরু করে শিক্ষা আর প্রতিভা থেকে শুরু করে নানান ধরনের দৈনন্দিন খবরাখবর কি না পাওয়া যায় সোশ্যাল মিডিয়ায়? লকডাউনের পর থেকেই সোশ্যাল মিডিয়া তৃতীয় বিশ্বের দেশের মানুষের একটা আসক্তিতে পরিণত হয়েছে।

আসলে মহামারী কালে ঘরবন্দি অবস্থায় থেকে অনেকেই কিন্তু ব্যাপক পরিমাণে সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহার করেছিলেন। পরবর্তীতে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে মানুষের এই অভ্যাস একেবারেই কেটে ওঠেনি। লক্ষ্য করে দেখবেন এই সোশ্যাল মিডিয়ায় কিন্তু বিভিন্ন ধরনের হাস্যকর ভিডিও অত্যন্ত বেশি রকমের ভাইরাল হয়ে উঠে। আজকের এই বিশেষ প্রতিবেদনেও আমরা এমনই একটি ভিডিও নিয়ে আলোচনা করতে চলেছি যেখানে মা এবং ছেলের ঝগড়া থেকে রীতি মতন হাসতে হাসতে পেট ফেটে গিয়েছেন নেটিজনদের। কমবেশি আমরা অনেকেই জানি মরসুমী শাকসবজি খেতে অনেকেই পছন্দ করেন না। ভাইরাল এই ভিডিওর ঘটনাও অনেকটা সেরকম।

ভিডিওর শুরুতে দেখা যায় রান্নাঘরে বসে এক ভদ্রমহিলা ফুলকপি আর মূলো কাটছেন। সম্ভবত রান্না তৈরি করার জন্য তিনি এই সবজিগুলি প্রস্তুত করছিলেন। ঠিক সেই সময়েই সেখানে তার একমাত্র ছেলে এসে উপস্থিত হয় এবং মায়ের উপর চেঁচামেচি করতে থাকে সব সময় ফুলকপি আর মুলোর তরকারি রান্না করার জন্য। আচমকাই কাটা সবজিগুলি সে উল্টে বাইরে ফেলে দেয় এবং কিছু সবজি সে বাড়ির পাশে থাকা জঙ্গলে নিয়ে গিয়ে ফেলে দেয়। এই গোটা ব্যাপারটিতে ওই মহিলা ক্রুদ্ধ হয়ে ওঠেন এবং একটি ছোট লাঠি নিয়ে ছেলেকে মারতে উদ্যত হন। প্রায় পাঁচ মিনিটের এই ভিডিওটি বেশ উপভোগ করেছেন নেট নাগরিকরা।

সৌরভ তালুকদার নামের একটি ফেসবুক প্রোফাইল থেকে এই ভাইরাল ভিডিওটি শেয়ার করা হয়েছে। এখনো পর্যন্ত ৭ মিলিয়নের বেশি মানুষ এই ভাইরাল ভিডিওটি দেখে নিয়েছেন এবং ৫০ হাজার মানুষ এই ভিডিওটিতে পছন্দ করেছেন। ভাইরাল ভিডিওর কমেন্ট বক্সে অনেকেই এই প্রসঙ্গে নিজেদের অভিজ্ঞতা শেয়ার করে নিয়েছেন এবং নানান ধরনের মজাদার মন্তব্যে কমেন্ট বক্স ভরিয়ে তুলেছেন। যদি আমাদের এই প্রতিবেদনটি ভালো লেগে থাকে তাহলে অবশ্যই কিন্তু এই মজাদার ভিডিওটি দেখে নিতে ভুলবেন না।

Back to top button