অতিরিক্ত জিনিস বোঝাই করে পাহাড় চড়তে গিয়ে শূন্যে উঠে গেলো লোরির সামনের দিক, ঘটলো বড়ো বিপদ, দেখুন সেই ভিডিও

নিজস্ব প্রতিবেদন: আজকালকার যুগে সাধারণ মানুষের মনোরঞ্জনের অন্যতম রাস্তা হয়ে দাঁড়িয়েছে সোশ্যাল মিডিয়া। ৮ থেকে ৮০ এখন সকলেই সোশ্যাল মিডিয়ার বাসিন্দা। বহু মানুষ এই প্লাটফর্মটিতে বিভিন্ন ভাবে যুক্ত হয়ে রয়েছেন। একটা সময় শুধুমাত্র তরুণ সমাজের মধ্যেই এর ব্যবহার প্রচলিত ছিল। তবে স্মার্টফোনের সহজলভ্যতা এবং বিভিন্ন ইন্টারনেট অফার সোশ্যাল মিডিয়াকে খুব সহজেই আমাদের হাতের মুঠোয় বন্দী করে ফেলেছে।

এখানে ক্রমাগত নানান ধরনের ছবি আর ভিডিও ভাইরাল হয়ে থাকে যা আমাদেরকে অবাক করে রেখে দেয়। বিভিন্ন শিক্ষামূলক ভিডিও থেকে শুরু করে নাচ, গান, কবিতা অথবা নানান ধরনের বিষয়ে সম্পর্কে এখানে জানা যায়। আবার মানুষের সুপ্ত প্রতিভা বিকাশের জন্য বা অর্থ উপার্জনের জন্য এটা একটা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ মাধ্যম হিসেবে পরিচিত।

পৃথিবীর যেকোনো প্রান্তের মানুষের সাথেই এই সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে সহজে যোগাযোগ করে নেওয়া যায় এবং বন্ধুত্ব স্থাপন করা যায়। facebook এবং whatsapp এর মতন চ্যাটিং অ্যাপ্লিকেশনগুলি এখন আমাদের কাছে ভীষণ জনপ্রিয়। সম্প্রতি এই মাধ্যমগুলির উপর ভিত্তি করেই একটি ভিডিও আমাদের চোখের সামনে উঠে এসেছে যার উপর ভিত্তি করে আমাদের আজকের প্রতিবেদন।

ভাইরাল এই ভিডিওটিতে দেখা যাচ্ছে সম্পূর্ণ খোলা রাস্তার উপরেই একটি ট্রাক সামনের দিকে এগিয়ে আসছে। কিন্তু অতিরিক্ত পন্য নিয়ে চলার কারণে সে একেবারেই ওজন সামলাতে পারছে না। বারংবার চালক ট্র্যাকটিকে সামলানোর চেষ্টা করলেও হিমশিম খেয়ে যাচ্ছেন সেটা চালানোর অবস্থা দেখেই বোঝা যাচ্ছে। এভাবে বেশ কিছুক্ষণ চলার পরে আচমকাই অতিরিক্ত ওজনের কারণে ট্রাকটির সামনের চাকা রীতিমতন শূন্যে অর্থাৎ হাওয়ায় উঠে যায়। এরপর বেশ কিছুক্ষণের চেষ্টায় অনেক কষ্টে ট্রাকটিকে নিজের নিয়ন্ত্রণে নিয়ে আসেন চালক।

যদিও কোন দুর্ঘটনা ঘটেনি তবে ভিডিওটি ভাইরাল হতে না হতেই নেট নাগরিকরা নানান ধরনের মন্তব্যে ভরিয়ে তুলেছেন কমেন্ট বক্স। অতিরিক্ত ওজনের কারণে যে বড়সড়ো কোন দুর্ঘটনা ঘটতে পারতো সেই নিয়ে বারংবার কথা বলেছেন সকলেই। এমনিতেই আমাদের দেশে পথ দুর্ঘটনার সংখ্যা ক্রমাগত বেড়ে চলেছে। এমতাবস্থায় যদি একটুও সতর্ক না থাকা হয় তাহলে এর থেকেও বড় বিপদ ঘটতে পারে বলেই অনেকের দাবি।Truck off road নামের একটি জনপ্রিয় ইউটিউব চ্যানেল থেকে এই ভিডিওটি শেয়ার করা হয়েছে। এখনো পর্যন্ত ভিডিওটি দেখেছেন প্রায় ৩ মিলিয়নের কাছাকাছি মানুষ এবং এটি পছন্দ করেছেন প্রায় ৮ হাজার মানুষ।

Back to top button