ছোট্ট বোতল দিয়ে একটা বড়ো মাছ ধরে তাক লাগালেন যুবক, ভিডিও দেখে হাঁ নেটবাসী

নিজস্ব প্রতিবেদন: বর্তমানে গণমাধ্যমের থেকেও অনেকাংশে শক্তিশালী হয়ে উঠেছে সোশ্যাল মিডিয়া ‌। আগেকার দিনে কোন খবরা খবর জানার জন্য আমাদের কিন্তু টেলিভিশন রেডিও অথবা সংবাদপত্রের উপর নির্ভর করতে হতো। কিন্তু এখন আর সেই দিন নেই। ঘরে বসেই একটু ইন্টারনেট খরচ করলে আমরা সহজেই যে কোন খবরাখবর পেয়ে যাই সোশ্যাল মিডিয়ার সাহায্যে। শিশু থেকে বয়স্ক সকলেই এখন নেট দুনিয়ার বাসিন্দা। সারাদিনের অবসর সময়ে অথবা কাজের মধ্যেই কিন্তু মুঠোফোনে চোখ না রাখলে মানুষের চলে না।

যদিও এই সোশ্যাল মিডিয়ার যে শুধু ভালো দিক আছে এমনটাই কিন্তু নয়। এই শক্তিশালী মাধ্যমের প্রচুর খারাপ দিক বর্তমান। অতিরিক্ত সোশ্যাল মিডিয়ার ব্যবহারে মানুষের মধ্যে মানসিক অবসাদ ক্রমশ বেড়েই চলেছে। এমনকি বহু মানুষ সামাজিক জীবন থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ছেন। দেখবেন পরিবারের সাথে বা বন্ধু-বান্ধবদের সাথে থেকেও অনেক ক্ষেত্রেই হয়তো আমাদের আশেপাশের মানুষজন ফোনেই বন্দি হয়ে থাকেন।

সোশ্যাল মিডিয়াতে বিভিন্ন মজাদার ভিডিও থেকে শুরু করে অনেক শিক্ষামূলক জিনিস ভাইরাল হয়। আজকাল আবার অনেকেই এই সোশ্যাল মিডিয়াকে নিজেদের সুপ্ত প্রতিভার বিকাশের মাধ্যম হিসেবেও ব্যবহার করছেন। সম্প্রতি নেট দুনিয়ায় একটি মাছ ধরার ভিডিও ভাইরাল হয়ে উঠে এসেছে যা দেখে রীতিমতন অবাক সকলেই। আমাদের দেশের মানুষের প্রধান জীবিকা হিসেবে কিন্তু আমরা কৃষিকাজ পশুপালন এবং মৎস্য চাষের কথা উল্লেখ করতে পারি। গ্রামাঞ্চলের দিকে বেশিরভাগ মানুষই কিন্তু এইসব কাজ করে জীবিকা নির্বাহ করে থাকেন। মাছ ধরা থেকে শুরু করে সেগুলো লালন-পালন বা এই সম্বন্ধিত যে কোন কাজ তাদের কাছে অর্থ উপার্জনের প্রধান উপায়।

মাছ ধরার নিত্যনতুন পদ্ধতি প্রায় সময় প্রয়োগ করে থাকেন তারা। নারী পুরুষ নির্বিশেষে গ্রামাঞ্চলের বহু মানুষ কিন্তু এই কাজে অত্যন্ত দক্ষ।সাধারণত লোহার তৈরি বড়ঁশিতে টোপ লাগিয়ে কীভাবে মাছ ধরতে হয় তা সকলেরই জানা। তবে বড়ঁশির সাহায্যে এভাবে মাছ ধরা একদিকে যেমন সময় সাপেক্ষ অন্যদিকে খুব কঠিন ব্যাপার। তাই সময়ের সাথে পাল্লা দিয়ে কিন্তু অবশ্যই একটু বিকল্প পদ্ধতি ট্রাই করা প্রয়োজন। ভাইরাল ভিডিওতে সেই বিকল্প পদ্ধতি দেখানো হয়েছে। এই কারণের জন্যই সামান্য এই মাছ ধরার ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ব্যাপক ভাইরাল হয়ে উঠে এসেছে ‌।

ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে,প্লাস্টিক বোতল ফাঁদ হিসেবে ব্যবহার করে দুর্দান্ত কায়দায় একের পর এক মাছ ধরে যাচ্ছেন অভিজ্ঞ যুবক। তার নিখুঁত কাজ দেখেই বোঝা যাচ্ছে এইসব ব্যাপারে অত্যন্ত অভিজ্ঞতা রয়েছে তার মধ্যে।। ভিডিও শুরুর প্রথম দৃশ্যে দেখা যায়, তিনি কয়েকটি কোল্ড্রিংসের ফাঁকা প্লাস্টিকের বোতল নিয়েছেন।প্রত্যেকটি প্লাস্টিকের বোতলের ছিপির সঙ্গে বড়ঁশির সুতো বেঁধে নেওয়া হচ্ছে। এবার লোহার বড়ঁশির সঙ্গে টোপ হিসেবে গ্রাম বাংলার পুকুরে যে সমস্ত গেঁড়ি-গুগলি পাওয়া যায় সেই প্রত্যেকটি গুগলি একটি করে প্রত্যেকটি বড়শিতে গেঁথে দিচ্ছে ওই যুবক। এবার গ্রামের মধ্যে থাকা একটি জলাশয় গিয়ে এই বোতলগুলোকে নির্দিষ্ট দূরত্বের মধ্যে বসিয়ে দেন তিনি।

যেহেতু বোতলগুলো ফাঁপা তাই কোনোভাবেই এগুলো জলের মধ্যে সম্পূর্ণ ডুবে যাচ্ছে না ‌। ভিডিওর পরবর্তী দৃশ্যে কয়েক ঘন্টা পর দেখা যায় প্রত্যেকটা বোতলের সঙ্গে থাকা বড়শিতেই কিন্তু বিশালাকৃতির মাছ আটকে পড়েছে। যুবকের এই মাছ ধরার পদ্ধতি বেশ পছন্দ করেছেন নেট নাগরিকেরা।ভিলেজ ফিশারম্যান নামের একটি জনপ্রিয় youtube চ্যানেল থেকে এই ভিডিওটি শেয়ার করে নেওয়া হয়েছে যা এখনো পর্যন্ত কুড়ি লক্ষের কাছাকাছি মানুষ দেখে নিয়েছেন। ভিডিওটি দেখার পর আপনারাও কমেন্ট বক্সে নিজেদের গুরুত্বপূর্ণ মতামত শেয়ার করে নিতে পারেন।

Back to top button