ওভেন ছাড়াই গ্যাসেতেই খুব সহজেই এইভাবে বানিয়ে দেখুন দুর্দান্ত স্বাদের পনীর টিক্কা, খেলে বলবেন ওয়াও!

নিজস্ব প্রতিবেদন: পনির টিক্কা রেসিপিটির নাম কমবেশি আপনারা সকলেই শুনেছেন। হোটেল বা রেস্টুরেন্টে গিয়ে প্রায় সময় আপনারা হয়তো এই রেসিপি অর্ডার করে থাকেন। আজ আমরা বাড়িতে কোনরকম গ্রিল বা ওভেনের সাহায্য ছাড়াই পনির টিক্কা তৈরির রেসিপি শেয়ার করে নেব। যারা এই রেসিপিটি পছন্দ করে থাকেন অবশ্যই কিন্তু একবার হলেও বাড়িতে এভাবে পনির টিক্কা বানাতে ভুলবেন না। চলুন তাহলে আর সময় নষ্ট না করে আজকের রেসিপি শুরু করা যাক।।

কি কি লাগবে?

১) পনির ২০০ গ্রাম ( কিউব করে কেটে নেওয়া)
২) হাফ বাটি টক দই
৩)রেড বেল পেপার পাপড়ি করে কাঁটা ৬-৮ পিস
৪)ক্যাপসিকাম পাপড়ি করে কাঁটা ৬-৮ পিস
৫) পেঁয়াজ পাপড়ি করে কাঁটা ৬-৮ পিস
৬) হাফ পাতিলেবুর রস
৭) এক চা চামচ লঙ্কার গুঁড়ো
৮)এক চা চামচ ধনেগুঁড়ো
৯)এক চা চামচ গরম মসলা
১০)বিট নুন হাফ চামচ
১১) স্বাদমতো লবণ
১২)গরম করা সরষের তেল ২ চা চামচ
১৩) তিনটে লম্বা বাঁশের কাঠি

কিভাবে বানাবেন?
রেসিপিটি তৈরি করার জন্য কিন্তু আপনাদের অবশ্যই ফ্রেস পনির ব্যবহার করতে হবে। চাইলে আপনারা ঘরে পনির তৈরি করেও সেটা রান্নার কাজে ব্যবহার করতে পারেন । পনির গুলোকে কিউবের আকারে কেটে নেবেন। এইসময় যে বাশের কাঠিগুলো নিয়েছিলেন সেগুলো জলে ভিজিয়ে রাখতে হবে। এবার একটা বড় পাত্র নিয়ে তার মধ্যে টক দই ঢেলে দিন। ভালোভাবে কিছুক্ষণ দই ফেটিয়ে নিয়ে তাতে লেবুর রস যোগ করুন।

এবার একে একে এই মিশ্রণের মধ্যে দিয়ে দিন লঙ্কার গুঁড়ো, ধনে গুঁড়ো, গরম মসলা, বিট নুন, নুন এবং গরম করে নেওয়ার সর্ষের তেল। সমস্ত উপকরণগুলোকে কিছুক্ষণ একসঙ্গে ভালো করে মিশিয়ে নেবেন। তারপর আবারও এর মধ্যে রেড বেল পেপার, ক্যাপসিকাম, পেঁয়াজের টুকরো যোগ করে সবার শেষে পনির মিশিয়ে দিন। ১৫ থেকে ২০ মিনিট পর্যন্ত এটাকে এই অবস্থাতেই ফ্রিজে রেখে দিতে হবে। নির্ধারিত সময়ের পর ফ্রিজ থেকে বের করে ভেজানো বাঁশের কাঠিতে এক এক করে রেড বেল পেপার, ক্যাপসিকাম, পনির, পেঁয়াজ গেঁথে নেবেন।

গাঁথার কাজ সম্পূর্ণ হলে পাঁচ মিনিট পর্যন্ত আবারো ফ্রিজে রেখে দিন। পরবর্তী ধাপে গ্যাসের উপর একটা ফ্ল্যাট চাটু বসিয়ে গরম করে নেবেন। এটার মধ্যে কিছুটা পরিমাণ বাটার ব্রাশ করে নিন। বাটার গলে গেলে এর মধ্যে একটা একটা করে পনির টিক্কাগুলোকে আপনাদের দিয়ে দিতে হবে। প্রত্যেকটা দিক ৫ মিনিট সময় করে ভালোভাবে ভেজে নেবেন। ব্যাস সবশেষে লেবুর রস আর চাট মশলা ছড়িয়ে গরম গরম পুদিনার চাটনির সাহায্যে এটা পরিবেশন করুন। খেতে কেমন লাগলো অবশ্যই একটা কমেন্টের মাধ্যমে জানাতে ভুলবেন না।

Back to top button